খরা মৌসুমের জন্য ব্যবহৃত হচ্ছে নিন্মমানের ইট!

নজরুল বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি   |   ১০:৪০, নভেম্বর ০৮, ২০১৯

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ে নির্মাণাধীন ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদে নিম্নমানের ইট ব্যবহার করছে দায়িত্বরত হাবিব এবং কোং কনস্ট্রাকশন কোম্পানি।

শুক্রবার ৮ নভেম্বর বিকালে অনুসন্ধানে ভবন নির্মাণে এমন নিম্নমানের ইট ব্যবহারের চিত্র উঠে আসে। দেখা গেছে ভবন নির্মাণে রজব কোম্পানির ইট ব্যবহার করা হয়েছে।যা ইতোপূর্বে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন গ্রুপে এবং সংবাদ প্রকাশের পর বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন নিম্নমানের ইট ব্যবহারে নিষেধ করেছিলেন। প্রশাসনের নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে এমন নিম্নমানের ইট ব্যবহার করছে এ কনস্ট্রাকশন কোম্পানি।

এ ব্যাপারে ভবন নির্মাণ কাজে নিয়োজিত একজন শ্রমিক বলেন, বর্তমানে খরা মৌসুমে ইট না থাকায় এমন নিম্নমান ইট ব্যবহার করা হচ্ছে।

কন্সট্রাকশন ম্যানেজার লিংকন বলেন নিম্নমানের ইট ইতিমধ্যে আমরা ফেরত দিয়েছি এবং সেখান থেকে বাছাই কৃত ভালো গুলো ব্যবহার করছি। বর্তমানে নিম্নমানের ইট ব্যবহার প্রসঙ্গে তিনি বলেন বাছাই করার সময় দুই একটি নিম্নমানের ইট চলে যেতে পারে।

এ ব্যাপারে বিশ্ববিদ্যালয়ের নির্বাহী প্রকৌশলী (সিভিল) এ কে এম জহিরুল হাছান বলেন, নিম্নমানের ইট ব্যবহারে সম্পূর্ণ রূপে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে কিভাবে এমন নিম্নমানের ইট ব্যবহার করে ভবন নির্মাণ করছেন এ ব্যাপারে তিনি অবগত নই। আমার ব্যক্তিগতভাবে এব্যাপারে পদক্ষেপ নেয়া সম্ভব হবে না তবে প্রোকৌশলী দপ্তর সম্মেলিত হলে ব্যবস্থা নেয়া সম্ভব হবে।

এ ব্যাপারে নির্বাহী প্রকৌশলী স্বপন কুমার শীল বলেন আমি নিম্নমানের ইট গুলো সরিয়ে নেওয়ার জন্য বলেছিলাম তবে প্রশাসনের সিন্ধান্ত ছিল বাছাই কৃত ভালো ইট গুলো ব্যবহার করা।

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-প্রধান প্রোকৌশলী মো. মাহবুবুল ইসলাম কে ফোনে একাধিকবার যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে তাকে পাওয়া যায়নি।

এমআর


আরও পড়ুন

সর্বশেষ সংবাদ

সব খবর