শিরোনাম

মেহেরপুরে ২ ভাইকে গলাকেটে খুন

মেহেরপুর প্রতিনিধি  |  ১০:২৪, সেপ্টেম্বর ১২, ২০১৯

মেহেরপুর সদর উপজেলায় গভীরাতে বিলের মধ্যে দুই মাছ চাষিকে গলাকেটে খুন করেছে দুর্বৃত্তরা। সম্পর্কে তারা আপন চাচাতো ভাই।

বুধবার (১২ সেপ্টেম্বর) রাত সাড়ে ১১টার পর সদর উপজেলার নতুন দরবেশপুর গ্রামের শৈলমারী বিলে এ খুনের ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- একই গ্রামের মৃত ইদ্রিস আলী মাস্টারের ছেলে রোকনুজ্জামান (৩৬) ও আজাদ আলী বিশ্বাসের ছেলে হাসান আলী (৪২)।

শৈলমারী বিল ইজারা নিয়ে প্রতিপক্ষের সঙ্গে পূর্ববিরোধের জের ধরেই তাদের পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছে নিহতের পরিবার।

নিহতদের পরিবারের সদস্যরা জানান, দীর্ঘ ১০ বছরের বেশি সময় যাবৎ শৈলমারী বিলটি ইজারা নিয়ে মাছ চাষ করে আসছেন দুই চাচাতো ভাই হাসান ও রোকন।

প্রতিদিনের ন্যায় বুধবার দিবাগত রাতে তারা বিল পাহারা দিতে গেলে সংঘবদ্ধ অস্ত্রধারী দুর্বৃত্তের দল হাসান ও রোকনকে ধরে নিয়ে কুপিয়ে ও গলা কেটে হত্যা করে।

পরে শৈলমারী বিলপাড় থেকে অপহৃত এই দুজনের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

স্বামী হত্যার বিচার চেয়ে নিহত হাসান বিশ্বাসের স্ত্রী ফরিদা খাতুন বলেন, ‘১০ বছর যাবৎ এই বিলের ইজারা নিয়ে মাছ চাষ করছে আমার স্বামী। এই নিয়ে প্রতিপক্ষের সঙ্গে শত্রুতা সৃষ্টি হয়। তারাই আমার স্বামীকে হত্যা করেছে।

রোকনের বড় ভাই খসরু মাস্টার বলেন, ‘রোকন আওয়ামী লীগের রাজনীতির সঙ্গে সম্পৃক্ত। বিল ইজারা নেয়ার পর থেকেই আমার ভাইয়ের সঙ্গে একটি পক্ষের বিরোধ সৃষ্টি হয়। এই বিল-সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরেই হত্যার ঘটনা ঘটতে পারে।

ঘটনার পরপরই খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন মেহেরপুর পুলিশ সুপার এস এম মুরাদ আলী।

এসময় তিনি বলেন, ‘স্থানীয়দের মাধ্যমে খবর পেয়ে টহল পুলিশের সদস্যদের ঘটনাস্থলে পাঠিয়ে সত্যতা নিশ্চিত হই।

এখানে (শৈলমারী বিল) একসঙ্গে দুইজনকে হত্যা করা হয়েছে।

তবে এখনই নির্দিষ্ট করে হত্যার কারণ বলা যাচ্ছে না। তাদের সারা শরীরে এলোপাতাড়ি কোপের চিহ্ন রয়েছে। তদন্ত করা হচ্ছে শিগগিরই মূল রহস্য বেরিয়ে আসবে।


এমএআই

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ


সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত