শিরোনাম

ফলাফল ‘ফেল’, আমার মেয়ে আখেরাতে পাস করবে: মা

নিজস্ব প্রতিবেদক   |  ০৫:৫০, জুলাই ১৭, ২০১৯

ফেনীর সোনাগাজীর আলোচিত মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফি বুধবার প্রকাশিত আলিম পরীক্ষার ফলে কৃতকার্য হতে পারনেনি। ফলাফল জানতে আসা নুসরাতের সহপাঠী ও তার পরিবারের সদস্যরা এ সময় কান্নায় ভেঙে পড়েন।

যৌননিপীড়নের পর হুমকি-ধমকি মাথায় নিয়ে সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদরাসা কেন্দ্রে দুটি পরীক্ষায় অংশ নেন নুসরাত জাহান রাফি। তাকে হত্যায় জড়িতরা পরীক্ষা দিতে দেবে না বলে আগেই হুমকি দিয়ে রেখেছিল।

সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসার ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ মাওলানা মো. হুসাইন বলেন, ফলাফল বিবরণীতে দেখা যায়, কোরআন মাজিদ, হাদিস ও উসুলে হাদিস পরীক্ষায় নুসরাত জাহান রাফি ‘এ’ গ্রেড পেয়েছে। সবগুলো পরীক্ষা দিতে পারলে নুসরাত অবশ্য ভালো ফল করতে সক্ষম হত। কিন্তু সেটা আর হয়ে উঠেনি। লেখাপড়ার প্রতি নুসরাতের কতটা আগ্রহ থাকলে এমন প্রতিকূল পরিস্থিতিতে পরীক্ষায় অংশ নিয়েছিল, তা বলাই বাহুল্য।

এদিকে, আলিম পরীক্ষার ফল প্রকাশের খবর পাওয়ার পর থেকে কান্না থামছে না নুসরাতের স্বজনদের। নুসরাতের মা শিরিনা আক্তারের বিলাপ যেন থামতেই চায় না।

এসময় নুসরাতের মা শিরিনা আক্তার ভারক্রান্ত কণ্ঠে বলেন, আমার মেয়ে আখেরাতের পরীক্ষায় পাস করবে। তিনি বলেন, আমার মেয়ে দুনিয়ার পরীক্ষায় পাস করতে না পারলেও ঠিকই আখেরাতের পরীক্ষায় পাস করবে।

বুধবার মাদ্রাসায় পরীক্ষার ফলাফল জানতে আসা শিক্ষার্থীরা নুসরাতের জন্য কান্নায় ভেঙে পড়েন। পরীক্ষার ফল প্রকাশের পর নুসরাতের সহপাঠী ও স্বজনরা শোক ধরে রাখতে পারেননি। এ সময় উপস্থিত শিক্ষকদের চোখেও নেমে আসে শোকের অশ্রু। সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসায় এক হৃদয়বিদারক দৃশ্যের অবতারণা হয়।

৬ এপ্রিল সোনাগাজী ইসলামিয়া সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসায় আলিম পরীক্ষার হল থেকে কৌশলে ছাদে ডেকে নিয়ে সিরাজ উদ্দৌলার সহযোগীরা নুসরাতের গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন লাগিয়ে দেয়। চিকিৎসাধীন অবস্থায় ১০ এপ্রিল ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে মারা যায় নুসরাত।

জেডআই

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত