শিরোনাম

মালয়েশিয়ার নাগরিকত্ব হারানোর পথে জাকির নায়েক

আন্তর্জাতিক ডেস্ক  |  ১৪:৪৩, আগস্ট ১৭, ২০১৯

ধর্মপ্রচারক জাকির নায়েক মালয়েশিয়ার নাগরিকত্ব হারাতে পারেন বলে মন্তব্য করেছন দেশটির প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মুহাম্মদ।

শুক্রবার ‍এক ভাষণে তিনি বলেন, জাকির নায়েকের বিরুদ্ধে আনিত অভিযোগ প্রমাণিত হলে মালয়েশিয়ায় তার স্থায়ী বসবাসের অনুমতি বাতিল করা হবে।

‍আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলোর খবরে বলা হয়েছে, মালয়েশিয়ায় বসবাসরত সংখ্যালঘুদের নিয়ে মন্তব্যের পর তাকে নিয়ে বিতর্ক শুরু হয়। তবে জাকির নায়েকের দাবি তার বক্তব্য বিতর্কিতভাবে প্রকাশ করা হয়েছে।

মাহাথির মোহাম্মদ বলেন, জাকির নায়েকের স্থায়ী বসবাসের অনুমতি রয়েছে মালয়েশিয়ায়। তবে যদি তিনি জাতির জন্য ক্ষতিকর কিছু করেন আমরা তার এই অনুমতি বাতিল করতে পারি।

জানা গেছে, মালয়েশিয়ার পুলিশ বিষয়টি তদন্ত করছে। প্রমাণিত হলে তার স্থায়ী বসবাসের সুযোগ বাতিল করা হবে।

মালয়েশিয়ায় ধর্ম ও জাতিগত ইস্যুকে স্পর্শকাতর বিবেচনা করা হয়। দেশটির ৬০ শতাংশ মানুষ মুসলমান আর বাকিরা চীন ও ভারতের নৃতাত্ত্বিক জনগোষ্ঠী।

সম্প্রতি জাকির নায়েক মন্তব্য করেছেন, ভারতের সংখ্যালঘু মুসলমানদের চেয়ে মালয়েশিয়ায় থাকা সংখ্যালঘু হিন্দুরা শতগুণ বেশি অধিকার ভোগ করছে।

তিনি বলেন, মালয়েশিয়ায় বসবাসকারী হিন্দুরা দেশটির চেয়ে ভারতের প্রধানমন্ত্রীকে সমর্থন করে বেশি।

প্রসঙ্গত, ভারতের আদালতে অর্থপাচার ও ধর্মীয় বিদ্বেষ ছড়ানোর অভিযোগ রয়েছে জাকির নায়েকের বিরুদ্ধে। দিল্লির পক্ষ থেকে তাকে ফেরত পাঠানোর আনুষ্ঠানিক আবেদন করা হলে ২০১৮ সালে মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মুহাম্মদ এ ব্যাপারে অনিচ্ছা প্রকাশ করেছিলেন।

আরআর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ


সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত