বুধবার ২৮ অক্টোবর ২০২০

১৩ কার্তিক ১৪২৭

ই-পেপার

কেরানীগঞ্জ (ঢাকা) প্রতিনিধি

সেপ্টেম্বর ১৮,২০২০, ০১:০৩

সেপ্টেম্বর ২৮,২০২০, ০১:৩১

শিল্পপতির বাড়ীতে দুর্ধর্ষ ডাকাতি

রাজধানীর কেরানীগঞ্জ উপজেলার রুহিতপুর ইউনিয়নের নতুন সোনাকান্দা গ্রামে ইয়ারা গ্রুপের চেয়ারম্যান হাজী শাহজাহানের বাড়িতে দুর্ধর্ষ ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে।

বুধবার (১৬ সেপ্টেম্বর) দিবাগত রাত ২টা থেকে ৪টা পর্যন্ত এ ডাকাতির ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, এসময় ডাকাতরা বাড়িওয়ালার মেয়ে আমেনা খাতুনের প্রায় দেড়শ ভড়ি স্বর্ণ ও নগদ দশ লাখ টাকা ও দামি আসবাপত্র নিয়ে যায়।

এদিকে ডাকাতির ঘটনার পর তদন্তের স্বার্থে বাড়ির তিন কেয়ারটেকারকে আটক করেছে পুলিশ।

পরিবার সূত্রে আরও জানা গেছে, করোনাকালীন সময়ে ইয়ারা গ্রুপের মালিক হাজী শাহজাহান তার পুরো পরিবার নিয়ে গ্রামে অবস্থান করছিলেন, তবে গত এক সপ্তাহ ধরে শহরের বাড়িতে চলে যাওয়ায় কেয়ারটেকার ছাড়া কেউ বাড়িতে ছিলো না। এই সুযোগে রাত আনুমানিক ২টার সময় বাড়ির প্রাচীর বেয়ে ১৫/২০ জনের একটি সশস্ত্র ডাকাতদল দুই গেটে অবস্থান করা দুই প্রহরীকে বেধে বাড়ীর কাজের লোক জলিলের কাছে থাকা চাবি দিয়ে দোতালা বিল্ডিংয়ে ডুকে একে একে ৫/৭ টি কক্ষে ব্যাপক ভাংচুর করে এক থেকে দেড়শ ভড়ি স্বর্ণালংকার, নগদ প্রায় দশ লাখ টাকা নিয়ে নির্বিঘ্নে পালিয়ে যায়।

এদিকে বাড়িতে কোনো পুরুষ না থাকায় তাদের বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।

তবে ইয়ারা গ্রুপের পরিচালক শফিক আহমেদের স্ত্রী নাসরিন খোয়া যাওয়া স্বর্ণের পরিমাণ ১০০ ভড়ির বেশি বলে আমার সংবাদকে নিশ্চিত করেছেন।

বাড়ির মালিকের আত্মীয় অপু জানান, বাড়িতে কোনো লোক না থাকায় ১০ থেকে ১৫টি আলমিরা ভেঙে ২৫৫ ভরি স্বর্ণালঙ্কার ও নগদ দশ লাখ টাকা নিয়ে যায় ডাকাতরা।

এদিকে ডাকাতির খবর পেয়ে বৃহস্পতিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) সকালে ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন ঢাকা দক্ষিণের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার হুমায়ুন কবির, ঢাকা জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (কেরানীগঞ্জ সার্কেল) রামানন্দ সরকার, কেরানীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ কাজী মইনুল ইসলাম, ইন্সপেক্টর তদন্ত মাসুদ আহমেদ, ইন্সপেক্টর অপারেশন আসাদুজ্জামান টিটুসহ, ঢাকা জেলা গোয়েন্দা সংস্থার উর্ধতন কর্মকর্তাবৃন্দ।

এ ব্যাপারে কেরানীগঞ্জ মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ কাজী মাইদুল ইসলাম বলেন, ডাকাতির ঘটনাটি সত্য। তদন্ত চলছে, মামলাও প্রক্রিয়াধীন।

আমারসংবাদ/জেডআই