রবিবার ০৫ জুলাই ২০২০

২১ আষাঢ় ১৪২৭

ই-পেপার

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

জুন ১৪,২০২০, ০৫:১১

জুন ১৪,২০২০, ০৫:১১

করুণা পেতে ‘করোনা পূজা’!

 

প্রতিদিনই ‘করোনা দেবী’র পূজা করছেন অনিলান। তিনি মারণ ভাইরাসকে দেবী হিসেবে উপাসনা করছেন যাতে করোনা যোদ্ধারা সুস্থ থাকেন। করোনাভাইরাসের থার্মোকলের রেপ্লিকা তৈরি করে তিনি প্রতিদিন পূজা করছেন।

এ ঘটনা ভারতের কেরালার কোল্লাম জেলার।

স্থানীয় গণামাধ্যমকে তিনি বলেন, আমি করোনাকে দেবী হিসেবে পূজা করছি। প্রার্থনা করছি যাতে স্বাস্থ্যকর্মী, পুলিশকর্মী, বিজ্ঞানীসহ অন্য করোনা যোদ্ধারা সুস্থ থাকেন। তিনি জানান, সোশাল মিডিয়ায় তাকে নিয়ে ট্রোল করলেও তার কিছু যায় আসে না। লোকজন তাকে উপহাস করে। এটাই তার সচেতনতার বার্তা বলেও তিনি দাবি করেন।

সোশাল মিডিয়ায় অনিলানকে নিয়ে জোর চর্চা চলছে। নেটিজেনরা বলছেন, শুধুমাত্র প্রচারের জন্য তিনি এসব করছেন। অনেকে বলছেন, এটা কেবলই কুসংস্কার। এই বিষয়ে অনিলানের দাবি, সংবিধান মেনেই তিনি করোনা দেবীর পূজা করছেন। তিনি বলেন, আমাদের ৩৩ কোটি হিন্দু দেব-দেবী। সংবিধানে দেওয়া মৌলিক অধিকার থেকেই আমি করোনা দেবীর পূজা করছি।

পূজায় অংশ নেওয়ার জন্য কাউকেই ডাকছেন না বলে জানিয়েছেন অনিলান। করোনা দেবীর পূজা করলেও অনিলান মন্দির, মসজিদ ও অন্য উপাসনাস্থান খোলার সরকারি সিদ্ধান্তের বিরোধী। তিনি জানান, বাড়িতেই পূজা-প্রার্থনা করা যায়। তিনি বলেন, ভাইরাসকে এখনো কাবু করা যায়নি। এই পরিস্থিতিতে ধর্মীয় স্থান খুলে দিলে পরিস্থিতি বেগতিক হয়ে যেতে পারে।

এর আগে ভারতের বিহার, ঝাড়খণ্ড, উত্তরপ্রদেশ এবং পশ্চিমবঙ্গের অনেক জায়গায় সাধারণ মানুষকে মহামারি থেকে দূরে থাকতে করোনা দেবীর উপাসনা করতে দেখা গেছে। আসামেরও কয়েকটি এলাকায় নারীরা করোনা দেবীকে সন্তুষ্ট করার জন্য প্রার্থনা করেছেন।

আমারসংবাদ/জেআই